সততার একটি উদাহরণ এঁকে দিলেন একজন অটোরিকশ চালক

লোকটি গরিব হলেও সৎ- এমন বাক্যের প্রতিফলন বাস্তব জীবনে চোখে পড়েনা বললেই চলে। তবুও ধনাঢ্য অসৎ মানুষের দৌরাত্ম, দুর্নীতির গ্রাসে চাপা পড়া সমাজে কখনও কখনও উঁকি দিয়ে এমন কিছু ঘটনা যা সততা, ন্যায়পরায়ণতাকে প্রতিষ্ঠিত করে। ঠিক এমন একটি ঘটনা ঘটলো ময়মনসিংহ শহরে। সততার একটি উদাহরণ এঁকে দিলেন একজন অটোরিকশার চালক। অটোরিকশা চালকের নাম জয়নাল আবেদীন ওরফে জয়নাল পাগলা (৫৮)। তার বাড়ি ময়মনসিংহের গৌরীপুর পৌরসভার পশ্চিম দাপুনিয়ায়।

এবার সিএনজি চালিত অটোরিকশায় যাত্রীর ফেলে যাওয়া ২ লাখ ৩০ হাজার টাকা রীতিমতো যাত্রীদের খুঁজে বের করে ফিরিয়ে দিলেন চালক। বুধবার (৫ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ময়মনসিংহ শহরের জুবলীঘাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। হারানো টাকা ফিরে পাবার পর কিছু টাকা উপহার দিতে চাইলেও ওই অটোরিকশার চালক তা গ্রহণ করেনি।

টাকা ফেরত পাওয়া যাত্রী গৌরীপুর পৌরসভার সেনিটারি ইন্সপেক্টর মো. শফিকুল ইসলাম জানান, মোটরসাইকেল কিনতে অটোরিকশা যোগে বুধবার বিকেলে ময়মনসিংহ শহরের জুবলীঘাট এলাকায় শো রুমে যাচ্ছিলেন। গন্তব্যে পৌঁছে চালককে ভাড়া দিয়ে চলে যান। শো রুমে টাকা পরিশোধের সময় টের পান সঙ্গে নিয়ে আসা টাকা নেই। এসময় তিনি হতাশ হয়ে পড়েন। এর কিছুক্ষণ পর অটোচালক জয়নাল ওই শোরুমে এসে তাকে খুঁজে বের করে টাকাগুলো ফেরত দিয়ে বলেন, এ টাকাগুলো আপনারা ভুল করে অটোরিকশার সিটে ফেলে এসেছিলেন।

জয়নাল আবেদীন জানালেন, পরিবারে স্ত্রী ও চার কন্যা সন্তান নিয়ে খুব কষ্ট করে জীবন জীবিকা চালিয়ে যাচ্ছি। তবু সততা ও নীতির কাছে কখনও মাথানত করিনি।

Comments

comments