লকডাউন না মানায় ভাইকে কুপিয়ে হত্যা!

করোনাভাইরাসের (কভিড-১৯) বিস্তার ঠেকাতে ভারতজুড়ে চলছে ২১ দিনের লকডাউন। জরুরি কাজ ছাড়া ঘরেই থাকার পরামর্শ দিয়েছে সরকার। কিন্তু অনেক ক্ষেত্রেই লকডাউনকে তোয়াক্কা করছেন না বহু মানুষ।

এজন্য পুলিশের লাঠিপেটাও খেতে হচ্ছে। কিন্তু লকডাউন না মানায় কাউকে খুন করা হতে পারে, তা বোধহয় ঘুণাক্ষরেও ভাবেননি কেউ। কিন্তু এমনই মর্মান্তিক ঘটনার সাক্ষী হলো মুম্বাইয়ের কান্দিভেলির বাসিন্দারা।

সংবাদ প্রতিদিন জানায়, কথা অমান্য করে রাস্তায় বের হওয়ায় ভাইকে কুপিয়ে হত্যা করেন ভাই। এ ঘটনায় ভাই-ভাবিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

ভারতে বুধবার ছিল লকডাউনের প্রথম দিন। সন্ধ্যায় ঘুরতে যেতে চেয়েছিলেন ২৮ বছরের যুবক দুর্গেশ। তাকে বারবার নিষেধ করেন ভাই রাজেশ লক্ষ্মী ঠাকুর ও ভাবি। কিন্তু তাদের কথা কানে তোলেননি দুর্গেশ। বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান।

কিছু সময় পর বাড়ি ফেরার পরই দুই ভাইয়ের মধ্যে কথা-কাটাকাটি শুরু হয়। ঝগড়ায় জড়িয়ে পড়েন রাজেশের স্ত্রীও। ঝগড়ার একপর্যায়ে ভাই দুর্গেশকে কোপ মারেন দাদা।

চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে এসে দুর্গেশকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার সকালে ভাই-ভাবিকে গ্রেপ্তার করে মুম্বাই পুলিশ।

স্থানীয়রা জানায়, দুর্গেশ পুনের একটি বেসরকারি সংস্থায় কাজ করতেন। লকডাউনের আগে বাড়ি ফিরেছিলেন।

Comments

comments