যুবলীগ নেতাকে মারধর, বাঁচাতে গিয়ে প্রাণ গেল অন্য যুবলীগ নেতার

নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলায় একটি সালিশ বৈঠকে স্থানীয় এক ব্যক্তির মারধরের হাত থেকে এক যুবলীগ নেতাকে বাঁচাতে গিয়ে হামলায় আরেক যুবলীগ নেতা নিহত হয়েছেন।

উপজেলার চানন্দী ইউনিয়নের নলের চরে বৃহস্পতিবার বিকালে এ ঘটনায় মাহবুবুর রহমান (৩২) নিহত হন বলে হাতিয়া থানার ওসি আবুল খায়ের জানান।

মাহবুবর নলের চরের আর্দশ গ্রামের আবুল খায়েরের ছেলে ও চানন্দী ইউনিয়ন যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন।

ওসি বলেন, বৃহস্পতিবার বিকালে নলের চরে পুকুরে মাছ ধরা নিয়ে সৌরভ ও মাইন উদ্দিন নামে দুই কিশোরের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। পরে চানন্দী বাজারে সালিশ বৈঠকে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ইসমাইল হোসেন দুই পক্ষকে মিলিয়ে দেন।

“এতে আদর্শ গ্রামের মোতাহের হোসেনের ছেলে কামাল উদ্দিন রেগে গিয়ে ইসমাইলকে মারধর করতে যায়। এ মাহবুবর বাঁধা দিলে কামাল তাকে কিলঘুষি মেরে আহত করে। পরে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে রাতে মাহবুবুরের মৃত্যু হয়। ”

ঘটনার পর থেকে কামাল পলাতক রয়েছেন। এ ঘটনায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান ওসি।

Comments

comments