মহামারীর শুরুতে নমুনা নষ্টের কথা স্বীকার করল চীন

নভেল করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) মহামারী আকারে ছড়ানোর শুরুর দিকে ‘অননুমোদিত পরীক্ষাগারের’ নমুনা নষ্টের নির্দেশ দেয়ার কথা স্বীকার করেছে চীন। খবর সাউথ চীনা মর্নিং পোস্টের।

যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে কয়েক মাস ধরে এই অভিযোগ করা হলেও চীন মুখ খোলেনি। মার্কিন সেক্রেটারি অব স্টেট মাইক পম্পেও কিছুদিন আগে দাবি করেন, তারা গত ডিসেম্বরে চীনের কাছে নতুন ভাইরাসের নমুনা চেয়েও পাননি।

চীনের ন্যাশনাল হেলথ কমিশনের কর্মকর্তা লিউ ডেঙ্গফেং শুক্রবার বললেন, ‘দ্বিতীয় ধাপের বিপদ এড়াতে জৈবিক সুরক্ষার কথা চিন্তা করে অননুমোদিত ল্যাবের নমুনা নষ্ট করা হয়।’

বেইজিংয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি দাবি করেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র যেভাবে বলছে তাতে কনফিউশন তৈরি হচ্ছে। উদ্দেশ্যমূলকভাবে তারা এটা করছে।’

লিউর দাবি, ‘উহানে নতুন এই ভাইরাসটির খোঁজ পাওয়ার পর জাতীয় পর্যায়ের পেশাদার প্রতিষ্ঠান থেকে পরীক্ষা করা হয়।’

‘আমরা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে যথা বিষয়ে বিষয়টি অবহিত করেছি। তাদের কাছে নমুনা পাঠিয়েছি।’

কভিড-১৯ রোগ আমেরিকায় মারাত্মকভাবে ছড়াতে শুরু করলে দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নানা ধরনের অভিযোগ তোলেন। তার দাবি, চীন ইচ্ছা করে গোপন ল্যাব থেকে ভাইরাসটি ছড়িয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তিনি তদন্তেরও ঘোষণা দিয়েছেন।

কিন্তু চীন বারবার এসব অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছে। লিউ এদিনের সংবাদ সম্মেলনেও একই কথা বলেন, ‘আমরা সব সময় বিশেষজ্ঞদের নিয়ে রোগটি মোকাবিলা করার চেষ্টায় ছিলাম। কিন্তু আমেরিকা যেভাবে কথা বলছে সেটি অগ্রহণযোগ্য।’

Comments

comments